আজ সোমবার মিয়ানমার সেনাবাহিনী সে দেশে সামরিক অভ্যুত্থান ঘটিয়েছে। এছাড়া অং সান সুচিসহ দেশটির শীর্ষ নেতাদের আটক করেছে। জানা গেছে, এক বছরের জন্য জরুরি অবস্থা জারি রেখে নির্বাচন দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে দেশটির সেনাবাহিনী।

বিবিসি বাংলার এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সামরিক বাহিনী থেকে জারি করা এক বিবৃতিতে চারটি বিষয়কে গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে। এগুলো হলো-

১. নতুন করে নির্বাচন কমিশন গঠন করা হবে এবং নিয়মানুযায়ী ভোটার তালিকা তদন্ত এবং পর্যালোচনা করা হবে;

২. কভিড-১৯ এর বিরুদ্ধে সামরিক সরকার যুদ্ধ চালিয়ে যাবে এবং মহামারির কারণে ক্ষতিগ্রস্থ অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ডকে বেগবান করা হবে;

৩. দেশজুড়ে যুদ্ধবিরতি প্রক্রিয়া বন্ধ করতে কাজ করে যাবে দেশটির সেনাবাহিনী; এবং

৪. জরুরি অবস্থা শেষে একটি সাধারণ নির্বাচন আয়োজন করবে দেশটির সেনাবাহিনী।