স্টার্ফ রিপোর্টার: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আজ (২০ সেপ্টেম্বর) রোববার তাঁর ত্রাণ তহবিলে ৩৪টি বাণিজ্যিক ব্যাংকসহ বিভিন্ন সংগঠনের কাছ থেকে প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ ও কল্যাণ ফান্ডে (বিএবি নেতাদের) অনুদানের চেক গ্রহন করেন। প্রধানমন্ত্রী তাঁর সরকারী বাসভবন গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে এই অনুষ্ঠানে যোগ দেন। প্রধানমন্ত্রীর পক্ষে এই অনুদান গ্রহণ করেন তাঁর কার্যালয়ের মুখ্য সচিব ড. আহমদ কায়কাউস।

এসময় প্রধানমন্ত্রী এই আর্থিক অনুদান দেয়ার জন্য সংগঠনগুলোর প্রতি কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করেন।বলেন, করোনা মোকাবেলায় সবাই আন্তরিকতার সাথে কাজ করছেন। আর এ জন্যই আমরা এই পরিস্থিতি মোকাবেলা করতে সক্ষম হয়েছি।

অনুষ্ঠানের এক পর্যায়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, আসন্ন শীতকালে কোন কোন ক্ষেত্রে করোনা পরিস্থিতির আরও অবনতি ঘটতে পারে। এজন্য আমাদেরকে এখন থেকেই তা মোকাবেলার জন্য প্রস্তুতি নিতে হবে। এবং এই মুহূর্ত থেকেই তা মোকাবেলায় প্রস্তুতি গ্রহণ করতে সংশ্লিষ্ট সকলের প্রতি নির্দেশ দিয়েছেন।

শেখ হাসিনা বলেন, সবাই দোয়া করেন এই করোনাভাইরাসের মহামারি থেকে দেশটা যাতে মুক্তি পায়। আমরা চাই আমাদের দেশসহ সারাবিশ্বের মানুষ যাতে সুস্থ থাকে, করোনাভাইরাসের ভয়াল গ্রাস থেকে যাতে  সবাই মুক্তি পায়। সত্যিই মানুষের খুব কষ্ট হচ্ছে।

তিনি আরো বলেন, কভিড-১৯ এর অভিঘাত থেকে রক্ষা পেতে এবং দেশের অর্থনীতিকে মুক্ত রাখতে প্রণোদনা প্যাকেজ ঘোষণা করেছি। সরকারের আন্তরিক প্রচেষ্টার কথা উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, করোনার আঘাতের সাথে সাথে বন্যার প্রতিঘাত সহ্য করেও আমরা দেশের ব্যবসা-বাণিজ্য ও অর্থনীতির চাকাকে সচল রাখতে কার্যকরী পদক্ষেপ গ্রহণ করেছি।যেখানে যা প্রয়োজন তাই দিয়েছি, কোন কাপণ্য করিনি। কারণ, জনগণের জন্য কাজ করাই আমাদের প্রধান লক্ষ্য।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, মানুষের কর্মসংস্থান যাতে সৃষ্টি হয় এজন্য আমরা দেশে অনেক বেশি প্রাইভেট ব্যাংক দিয়েছি।এতে দেশের অনেক বেকার মানুষের চাকরি হয়েছে। এর সাথে সাথে আমাদের ব্যবসা-বাণিজ্যও সম্প্রসারিত হয়েছে। আর এটাই হচ্ছে সবচেয়ে বড় কথা। তাই ব্যাংকগুলো যাতে ভালোভাবে চলে সেজন্য বিএবি নেতাদের প্রতি বিশেষভাবে দৃষ্টি দেয়ার অনুরোধ করেন তিনি।

অনুষ্ঠানে বিএবি চেয়ারম্যান নজরুল, ব্যাংক সেক্টর নিয়ে কিছু দাবি তুলে ধরলে প্র্র্র্রধানমন্ত্রী সেগুলো বিবেচনার আশ্বাস দিয়ে বলেন, আপনার দাবিগুলো মধ্যে যদি সমস্যা থাকে, সেখানে যাতে সমস্যা না হয়, আমরা তা অবশ্যই বিবেচনা করবো।